×
  • ঢাকা
  • রবিবার, ১৬ মে, ২০২১, ২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮

ইসলামপুরে গ্রামীন জনপদে শহরের ছোঁয়া সন্ধ্যা নামতেই মেঠপথ আলোকিত


লিয়াকত হোসাইন লায়ন | জামালপুর প্রতিনিধি প্রকাশিত: এপ্রিল ১৬, ২০২১, ১১:০১ এএম ইসলামপুরে গ্রামীন জনপদে শহরের ছোঁয়া সন্ধ্যা নামতেই মেঠপথ আলোকিত

রাতের গ্রামীণ মেঠোপথ মানেই জনসাধারণের ভয় নিয়ে চলাফেরা করা। জামালপুরের ইসলামপুর উপজেলার প্রত্যন্ত গ্রামের মেঠোপথগুলো অধিকাংশেরও বেশি ইউনিয়ন দূর্গম চরাঞ্চল। সন্ধ্যা নামলেই গ্রামের রাস্তাগুলো হয়ে পড়ে অন্ধকারাচ্ছন্ন। চলাচলে পথচারিদের পরতে হতো নানান জটিলতায়। সন্ধ্যার পরে রাস্তায় জেঁকে বসতো ঘুটঘুটে অন্ধকার। কিন্তু সে রাস্তাঘাটগুলো এখন স্ট্রিট লাইটের আলোয় আলোকিত। সন্ধ্যা নামলেই, সড়ক.হাট-বাজার, বিভিন্ন সামাজিক ও সরকারি প্রতিষ্ঠান ও গ্রামের মেঠোপথগুলো শহুরে রাস্তা পরিণত হচ্ছে।

সন্ধ্যা নামার সাথে-সাথেই স্বয়ংক্রিয়ভাবে জ্বলে উঠে বাতিগুলো। আবার সকালের আলো ফোটার সাথে সাথেই স্বয়ংক্রিয়ভাবে বন্ধ হয়ে যায়।

আরো পড়ুন: ফুলবাড়িয়ায় স্ত্রীকে হত্যার অভিযোগে স্বামী গ্রেফতার

বাংলাদেশ সরকারের ধর্ম-প্রতিমন্ত্রী আলহাজ্ব ফরিদুল হক খান দুলাল এমপি’র উদ্যোগে গ্রামীণ জনপদের সড়ক ও মেঠোপথগুলোতে স্ট্রিট লাইট বসানোয় উপজেলার মেঠোপথগুলো হয়ে উঠেছে আলোকিত। প্রধানমন্ত্রীর ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ দেয়া ও গ্রাাম হবে শহর। এ অঙ্গীকার এখন গ্রামীণ সড়কগুলোকে সৌর বিদ্যুতের আলোয় আলোকিত করছে।

বাতি স্থাপনের আগে এসব রাস্তায় মানুষ চলাচল করতে ভয় পেত পরতে হতো নানান জটিলতায়। এখন সেই ভয় আর জটিলতা নেই। কাজ শেষে সন্ধ্যার পরও নির্বিঘ্নে বাড়িতে ফিরতে পারেন তারা। অপরাধ দমনের পাশাপাশি এসব বাতি স্থাপনে দূর হয়েছে উপজেলাবাসীর জীবনের অন্ধকার।

আরো পড়ুন: এসএমএস করলেই পৌঁছে যাবে ত্রাণ

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, উপজেলার বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে স্ট্রিট লাইট স্থাপন করা হয়েছে। পথচারির জানান- আমাদের রাস্তায় চলাচল করতে আর কোন অসুবিধা পরতে হয়না। তবে কিছু জায়গায় বাকি আছে, সেগুলোতে দ্রুত সড়ক বাতি স্থাপন করা দাবি জানান তারা।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মেহেদী হাসান টিটু জানান, উপজেলার প্রতিটা রাস্তার গুরুত্বপূর্ণ স্থানে স্ট্রিট লাইট বসানো হয়েছে। স্ট্রিট লাইট বসানোয় এর সুফল পাচ্ছে উপজেলার প্রত্যন্ত এলাকার মানুষগুলো। এ কাজটি চলমান থাকবে।

উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এড্যভোকেট জামান আব্দুন নাসের বাবুল জানান- গ্রামের মানুষের জীবন বদলে দিতেই আমরা ধর্ম-প্রতিমন্ত্রীর একান্ত সহযোগিতাই সৌর সড়ক বাতি স্থাপন করতে সক্ষম হয়েছি। অল্প সময়ের মধ্যেই সমস্ত উপজেলায় স্ট্রিট স্থাপন করতে সক্ষম হবো।

ইউসুফ / একটিভ নিউজ