×
  • ঢাকা
  • শনিবার, ০৮ মে, ২০২১, ২৪ বৈশাখ ১৪২৮

পরকীয়া প্রেমের বলি হলেন নার্স, পুলিশ সদস্যসহ গ্রেফতার ৪


একটিভ নিউজ প্রকাশিত: এপ্রিল ১৯, ২০২১, ০৯:৫৭ এএম পরকীয়া প্রেমের বলি হলেন নার্স, পুলিশ সদস্যসহ গ্রেফতার ৪
সংগৃহীত

রেলওয়ে থানার জিআরপি পুলিশ নিতাইয়ের সাথে দীর্ঘদিনের প্রেমের সম্পর্ক ছিল নার্স ননিকা রানী রায়ের। একপর্যায়ে বিয়ের দাবি করায় ননিকাকে খুন করে ড্রামের ভেতর ঢুকিয়ে সিটি বাইপাস এলাকার একটি ডোবায় ফেলে আসা হয় বলে জানিয়েছে পুলিশ।

এ বিষয়ে পুলিশ জানায়, সম্প্রতি বিয়ের জন্য নিতাইকে চাপ দিচ্ছিল ননিকা। এতেই ক্ষিপ্ত হয়ে ননিকাকে নগরীর তেরখাদিয়া এলাকায় একটি ভাড়া করা ফ্ল্যাটে ডেকে শ্বাসরোধে হত্যা করে ড্রামে ভরে করে ফেলে আসেন নিতাই। এতে সহযোগিতা করেন মাইক্রোবাসের চালকসহ আরও দুজন। এ ঘটনায় জড়িত প্রত্যেককে গ্রেফতার করা হয়েছে।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- পুলিশ কনস্টেবল নিতাই চন্দ্র সরকার (৪৩)। তার বাড়ি পাবনার আতাইকুলা উপজেলার চরাডাঙ্গা গ্রামে। তার স্ত্রীও বগুড়ায় পুলিশে কর্মরত। এছাড়া তার ৩ সহযোগী নগরের কাশিয়াডাঙ্গা থানার আদারীপাড়ার কবির আহম্মেদ (৩০), রাজপাড়া থানার শ্রীরামপুর এলাকার সুমন আলী (৩৪) এবং মাইক্রোবাসচালক নগরীর বিলশিমলা এলাকার আব্দুর রহমান (২৫)।

আরো পড়ুন: হাফেজী মাদ্রাসার শিক্ষককে পিটিয়ে জখম করলেন শিক্ষার্থীর বাবা

পিবিআই তাদের ফেসবুক পেজে রোববার (১৮ এপ্রিল) বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।

এ ঘটনার বিষয়ে শাহমখদুম থানার ওসি সাইফুল ইসলাম জানিয়েছেন, ‘রাজশাহী নগরীর সিটিহাট এলাকার একটি ডোবায় পড়ে থাকা ড্রামের ভেতর থেকে গত শুক্রবার (১৬ এপ্রিল) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে তরুণীর লাশ উদ্ধার করা হয়। রোববার (১৮ এপ্রিল) নিহত ওই তরুণীর পরিচয় শনাক্ত করে তার পরিবার। নিহত তরুণীর নাম ননিকা রানী রায় (২৪)। তিনি ঠাকুরগাঁও সদরের মিলনপুরের নিপেন চন্দ্র বর্মণের মেয়ে। রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নার্সিং ইনস্টিটিউট থেকে ননিকা তার ডিপ্লোমা ডিগ্রি সমাপ্ত করে নার্সের চাকরি করতেন।’

রেজাউল করিম / একটিভ নিউজ