×
  • ঢাকা
  • শনিবার, ০৮ মে, ২০২১, ২৪ বৈশাখ ১৪২৮

নামাজরত অবস্থায় মেরে ফেলল একই পরিবারের ৮ জনকে


একটিভ নিউজ প্রকাশিত: এপ্রিল ১৮, ২০২১, ০৫:৪০ পিএম নামাজরত অবস্থায় মেরে ফেলল একই পরিবারের ৮ জনকে
সংগৃহীত

ইসলাম ধর্মের প্রধান উপাসনাকর্ম নামাজ হল। প্রত্যেক মুসলিমের জন্য ফরজ প্রতিদিন ৫ ওয়াক্ত নামাজ আদায় করা। ঈমান বা বিশ্বাসের পর নামাজই ইসলামের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ স্তম্ভ। একজন মুসলমান হিসেবে আমাদের প্রত্যকেরই নামাজ আদায় করা উচিৎ। তাতে আসুক যত বাধা-বিপত্তি।

নতুন খবর হচ্ছে যে, আফগানিস্তানে মসজিদে তারাবির নামাজের সময় অজ্ঞাত বন্দুকধারীর গুলিতে একই পরিবারের ৮ জন নিহত হয়েছেন। গত শনিবার রাতে দেশটির পূর্বাঞ্চলের নানগারহার প্রদেশে এই ঘটনা ঘটেছে।

প্রদেশটির গভর্ণর জিয়াউল হক আমারখিল জানিয়েছেন যে, শহরের জালালাবাদে বন্দুক হামলা হয়েছে।

 

 

আরো পড়ুন

করোনা: ভারতে সৎকারের অপেক্ষায় পড়ে আছে সারি সারি লাশ

 

ভারতে আশঙ্কাজনক হারে বাড়ছে করোনায় আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা। শ্মশান ও গোরস্থানে সৎকারের অপেক্ষায় জমছে লাশের সারি। এদিকে ভারতের হাসপাতাল গুলোতে দেখা যাচ্ছে ভয়াবহ সব চিত্র। অক্সিজেন সরবরাহ ও সংকটের কারণে হাসপাতালগুলোর পরিস্থিতি আরও ভয়াবহ হয়ে উঠেছে।

এ অবস্থা নিয়ন্ত্রনে টিকার উৎপাদন ১০ গুণ করার ঘোষণা দিয়েছে সরকার। আর বর্তমান করোনা পরিস্থিতি বিবেচনায় কুম্ভমেলা প্রতীকীভাবে পালনের আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ মোদি।

এদিকে করোনার কারণে প্রতিদিনই প্রাণহানি বাড়ায় প্রচণ্ড চাপের মুখে পড়েছে শ্মশান এবং চুল্লিগুলো।

আরো পড়ুন: হাসপাতালে চিকিৎসা না পেয়ে করোনা আক্রান্ত নারীর আত্মহত্যা 

বিষয়টি নিশ্চিত করে দি ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস জানায়, মহারাষ্ট্র, উত্তরপ্রদেশ, উত্তরাখণ্ডসহ বিভিন্ন রাজ্যের সরকারি মর্গগুলোর সামনে শত শত মরদেহ পড়ে থাকতে দেখা যায়। করোনার কারণে বেশির ভাগ লাশই গ্রহণ করেননি মৃতদের স্বজনরা। ফলে লম্বা অপেক্ষার পর শেষকৃত্য সম্পন্ন করছে শ্মশানের কর্মীরা। পরিস্থিতি সামাল দিতে বিভিন্ন জেলায় গণদাহর ব্যবস্থা করা হয়েছে।

এমন অবস্থায় করোনা সংকট নিরসনে শনিবার ১১টি রাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রীদের এক বৈঠক আহ্বান করেছেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষবর্ধন। 

প্রসঙ্গত, গত ৬ দিনের মধ্যে ভারতে মোট ১০ লাখ মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

সাইফুল বারী / একটিভ নিউজ